A Latest Crime Report Bengali Newspaper
বুধবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০১৭ ইংরেজি, ১২ই আশ্বিন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ

জেনে নিন ফুসফুস ক্যান্সারের লক্ষণগুলো

lung-cancer


স্বাস্থ্য সুরক্ষায় প্রয়োজন সচেতনতা। দৈনন্দিন জীবনে চলার পথে নিজের প্রতি একটু সচেতন থাকলেই মুক্তি পাওয়া যায় ক্যান্সারে মতো রোগ থেকেও। ফুসফুসের মাধ্যমে যেহেতু পরিবেশের সব ভালো-মন্দ আমাদের শরীরে প্রবেশ করে, তাই এখানে ক্যান্সারে আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকিও সবচেয়ে বেশি থাকে। গবেষকরা বলেছেন, সঠিক সময়ে রোগটি চিহ্নিত করা না গেলে শতকরা ১০০ ভাগ ক্ষেত্রে রোগীর মৃত্যু হয়। আবার প্রাথমিক পর্যায়ে ধরা না পড়লে একে নিয়ন্ত্রণও করা সম্ভব নয়। তাই জেনে নেয়া যাক, ফুসফুস ক্যান্সারের কিছু লক্ষণ।

১. দীর্ঘস্থায়ী কাশি বা স্বরভঙ্গ
কোনোভাবেই যাচ্ছে না কাশি, তাহলে ডাক্তার দেখানো জরুরী। এছাড়া খসখসে, ভাঙ্গা কণ্ঠস্বর আট সপ্তাহের বেশি থাকলে সেটাও চিন্তার বিষয়।

২. নিঃশ্বাস নিতে কষ্ট হওয়া
খুব সহজেই দম ফুরিয়ে যাওয়া বা নিঃশ্বাস নিতে কষ্ট হওয়া, এমন কাজ করতে কষ্ট হওয়া যা আগে সহজ ছিল- এমন পরিস্থিতিতে আপনার বুঝে নিতে হবে কোনো সমস্যা আছে। লাং ক্যান্সার ছাড়া অন্য কারণও থাকতে পারে এর পেছনে।

৩. বুকে ব্যথা
ফুসফুসের এলাকায় বুকে ব্যথা, বিশেষ করে ভারী কিছু ওঠানোর সময়ে, কাশি বা হাসার সময়ে ব্যথা হলে তা লাং ক্যান্সারের একটি উপসর্গ। ব্যথাটা যদি সবসময় থাকে তবে সেখানে টিউমারের উপস্থিতি থাকতে পারে।

৪. কাশির সাথে রক্ত যাওয়া
কাশি বা কফের সাথে রক্ত যাওয়াটা মোটেই ভালো লক্ষণ নয়। লাং ক্যান্সারের অন্যান্য উপসর্গের সাথে সাধারণত এই লক্ষণটি দেখা যায়।

৫. ওজন এবং খাবারের রুচি কমে যাওয়া
আপনি ওজন কমানোর চেষ্টা করছিলেন না তবুও হুট করে ওজন কমে যাওয়া খুবই খারাপ লক্ষণ। এর মানেই লাং ক্যান্সার নয়, কিন্তু ব্যাপারটি এড়িয়ে জাবেন না। এর পাশাপাশি ক্ষুধামন্দা থাকার কারণ হতে পারে শরীরের কোথাও ক্যান্সার টিউমারের উপস্থিতি। এই ওজন কমাকে বলা হয় ক্যাচেক্সিয়া।

৬. মাথা কিংবা কাঁধে ব্যথা করা
বেশ কিছুদিন ধরে মাথা ব্যথা কিংবা কাঁধে ব্যথা হলেও সাবধান হোন। কেননা এটিও ফুসফুস ক্যান্সারের লক্ষণ হতে পারে।

৭. ক্লান্ত বা দুর্বল অনুভূতি
অনেক কারণেই ক্লান্তি লাগতে পারে। কিন্তু হঠাৎ করেই ক্লান্তি লাগা, অফিস বা বাসার কাজ করতে কষ্ট হওয়াটা খারাপ কিছুর লক্ষণ এবং তা হতে পারে ক্যান্সারের লক্ষণ। ক্যান্সার শরীরে বাসা বাঁধলে তা শরীরের শক্তি শুষে নিতে শুরু করে এবং আপনাকে সহজেই ক্লান্ত করে দেয়।

৮. হাড় ও মাংসপেশীতে ব্যথা করা
অনেকেরই হাড় ও মাংসপেশীতে নানা সময়ে ব্যথা হয়। তবে তা সবসময় যে ক্লান্তি বা দুর্বলতার কারণে হয় তা নয়। ফুসফুসে ক্যান্সার হলে এই সমস্যা আরও বেড়ে যায়। কাজেই ক্যান্সারের হাত থেকে বাঁচতে আগেই সচেতন হোন।

৯. কণ্ঠস্বর কর্কশ হয়ে যাওয়া
কণ্ঠস্বর কর্কশ বা ফেঁসফেঁসে হলে অবশ্যই চিকিৎসকের কাছে যান। এই লক্ষণ সাধারণত কাশি বা কফের সময় হয়। তবে এটা যদি দুই সপ্তাহের বেশি হয় তবে সতর্ক হওয়া প্রয়োজন। ফুসফুসের টিউমার কণ্ঠস্বরের স্নায়ুর ওপর প্রভাব ফেললে এই সমস্যা হয়।

১০. বারবার ব্রঙ্কাইটিস বা নিউমোনিয়া হওয়া
বারবার নিউমোনিয়া এবং ব্রঙ্কাইটিস হতে পারে ফুসফুসের ইনফ্লামেশনের ফলে। এর জন্য ডাক্তারের লাং ক্যান্সারের টেস্ট করা জরুরী।

 

সিডর/বুধবার, ২২ মার্চ ২০১৭ ইংরেজি